আ.লীগ মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ধ্বংস করেছে : জয়নুল আবদিন ফারুক

মাসুদ রানা ॥

সাবেক বিরোধীদলীয় চীপ হুইপ ও বিএনপি চেয়ারপার্সনের উপদেষ্টা মন্ডলীর সদস্য জয়নুল আবদীন ফারুক বলেছেন,যতক্ষণ পর্যন্ত তত্ত্বাবধায়ক সরকারের দাবী মানা না হবে ততক্ষণ পর্যন্ত এদেশে কোন নির্বাচন হবে না। দলীয় নেতাকর্মীদের বলবো আপনারা হতাশ হবেন না কিছু দিনের মধ্যেই আমাদের কেন্দ্রীয় নেতারা জেল থেকে বেরিয়ে আসবে। মনে রাখবেন আওয়ামী লীগের অধিনে এদেশে কোন নির্বাচন হবে না।

কেন্দ্রীয় কর্মসূচির অংশ হিসেবে জেলা বিএনপি আয়োজিত গণমিছিলের আগে সংক্ষিপ্ত বিক্ষোভ সমাবেশে শনিবার (২৪ ডিসেম্বর) বিকেলে বিএনপির কার্যালয়ের সামনে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আর বলেন,দেশে খুন গুম আর বিরোধী দলকে দমন-পীড়ন করে আওয়ামী লীগ মুক্তিযুদ্ধের চেতনাকে ধ্বংস করেছে। এই জালেম স্বৈরাচারী সরকারকে হটাতে না পারলে দেশে সাধারণ মানুষের ভোট ও ভাতের অধিকার ফিরে আসবে না। আমরা জনগণের অধিকার ফিরিয়ে দেয়ার জন্য আমরা আন্দোলনে নেমেছি। বিএনপি সরকার মুক্তিযোদ্ধা মন্ত্রণালয় বানিয়েছেন, যুব মন্ত্রণালয় বানিয়েছেন,জিয়াউর রহমান খাল কেটে এদেশে পানির ব্যাবস্থা করেছে এরকম কার্যক্রমের কথা আগামী প্রজন্মকে জানাতে হবে। দেশের মানুষ আর গুম, খুন মামলা চায় না। আওয়ামী লীগ নিজেদের সরকারের অধীনে ২০১৪ ও ২০১৮ সালে নির্বাচন করে ক্ষমতায় আসছে।

চাঁদপুর জেলা বিএনপির সভাপতি শেখ ফরিদ আহমেদ মানিকের সভাপতিত্বে এবং সাধারণ সম্পাদক এডঃ সেলিমুস সালাম সেলিমের পরিচালনায় উপস্থিত ছিলেণ জেলা ও উপজেলা বিএনপি নেতৃবৃন্দ।

চাঁদপুর শহরের হাজী মহসিন রোডের সামনে থেকে গণমিছিল শুরু হয়ে মিছিলটি প্রধান প্রধান সড়ক প্রদক্ষিণ করে হাসান আলী উচ্চ বিদ্যালয় মাঠে গিয়ে শেষ হয়।

সংক্ষিপ্ত বিক্ষোভ সমাবেশ শেষে আওয়ামী সরকারের পদত্যাগসহ ১০ দফা বাস্তবায়ন এবং বেগম খালেদা জিয়া, মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর ও মির্জা আব্বাসসহ সারা দেশে গ্রেপ্তার হওয়া নেতাকর্মীদের মুক্তির দাবিতে গণমিছিল করেন দলটির নেতাকর্মীরা। মিছিলে নেতাকর্মীরা সরকারবিরোধী নানা স্লোগান দিতে থাকেন।

এদিকে আইন শৃঙ্খলা পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে শহরের গুরুত্বপূর্ণ পয়েন্টে অতিরিক্ত পুলিশ অবস্থান নিয়েছেন।

শেয়ার করুন: