আওয়ামী লীগের প্রেসিডিয়াম সদস্য হলেন মায়া

নিজস্ব প্রতিবেদক :

আওয়ামী লীগের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী ফোরাম সভাপতিমণ্ডলীর (প্রেসিডিয়াম) সদস্য হিসেবে যুক্ত হয়েছেন চাঁদপুরের কৃতি সন্তান মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী (মায়া) বীর বিক্রম। তিনি দলের কেন্দ্রীয় কমিটির সদস্য ও অবিভক্ত ঢাকা মহানগর আওয়ামী লীগের সাবেক সাধারণ সম্পাদক। চাঁদপুর-২ (মতলব উত্তর-দক্ষিণ) আসনের কয়েক দফায় নির্বাচিত সংসদ সদস্য তিনি। এছাড়া আওয়ামী লীগ সরকারে একাধিকবার মন্ত্রী-প্রতিমন্ত্রী ছিলেন মায়া চৌধুরী।

শুক্রবার (১৯ নভেম্বর) প্রধানমন্ত্রীর সরকারি বাসভবন গণভবনে আওয়ামী লীগের কেন্দ্রীয় কার্যনির্বাহী কমিটির সভায় দলটির সভাপতি শেখ হাসিনা দলের তিন নেতাকে সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য হিসেবে অন্তর্ভুক্ত করেন। অপর দু’জন হলেন সাবেক খাদ্যমন্ত্রী অ্যাডভোকেট কামরুল ইসলাম ও রাজশাহী সিটি করপোরেশনের মেয়র খায়রুজ্জামান লিটন।

আওয়ামী লীগের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী, দলটির সভাপতি ও সাধারণ সম্পাদকসহ ১৯জনের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী ফোরাম সভাপতিমন্ডলী। ২০১৯ সালের জাতীয় সম্মেলনের পর ঘোষিত কমিটিতে সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য হিসেবে দায়িত্ব পেয়েছিলেন ১৭জন।

তারা হলেন- সাজেদা চৌধুরী, শেখ ফজলুল করিম সেলিম, মতিয়া চৌধুরী, মোহাম্মদ নাসিম, কাজী জাফর উল্লাহ, সাহারা খাতুন, মোশাররফ হোসেন, পীযূষ কান্তি ভট্টাচার্য, নুরুল ইসলাম নাহিদ, আবদুর রাজ্জাক, মুহাম্মদ ফারুক খান, রমেশ চন্দ্র সেন, আবদুল মান্নান, আবদুল মতিন খসরু, শাজাহান খান, আব্দুর রহমান ও জাহাঙ্গীর কবির নানক।

চলতি বছরের ১৪ এপ্রিল করোনা আক্রান্ত হয়ে মারা যান দলটির সভাপতিমণ্ডলীর সদস্য অ্যাডভোকেট আবদুল মতিন খসরু। এর আগে ২০২০ সালের ১৩ জুন মারা যান দলটির সভাপতিমণ্ডলীর অন্যতম সদস্য মোহাম্মদ নাসিম।

ওই বছরের ১০ জুলাই মারা যান দলটির সভাপতিমণ্ডলীর অপর সদস্য অ্যাডভোকেট সাহারা খাতুন। এতে শূন্য হয় সভাপতিমণ্ডলীর তিনটি পদ। শূন্য পদেই দায়িত্ব পেলেন তারা।

এদিকে মায়া চৌধুরী দলের সর্বোচ্চ নীতিনির্ধারণী ফোরাম তথা প্রেসিডিয়াম সদস্য হওয়ায় মতলব উত্তর, মতলব দক্ষিণসহ চাঁদপুর জেলায় দলীয় নেতা-কর্মীদের মধ্যে আনন্দের বন্যা বইছে। নেতৃবৃন্দ মনে করেন, এর মাধ্যমে একজন যোগ্য ও ত্যাগী নেতার যথাযথ মূল্যায়ন হলো। এই গুরুদায়িত্ব প্রদান করায় দলীয় সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনাকে ধন্যবাদ ও কৃতজ্ঞতা জানিয়েছেন দলের তৃণমূলের নেতা-কর্মী-সমর্থকবৃন্দ।

Recommended For You

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *