আজিমিয়া স্কুলের প্রধান শিক্ষক রফিকের রহস্যজনক মৃত্যু

নিজস্ব প্রতিবেদক॥

চাঁদপুর শহরের বিষ্ণুদী আজিমিয়া সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ের প্রধান শিক্ষক মো. রফিকুল ইসলাম (৫৬) এর রহস্যজনক মৃত্যু হয়েছে। ২৬ জানুয়ারি বুধবার দুপুরে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতাল থেকে ঢাকায় নেয়ার পথে তিনি মৃত্যুরবণ করেন। এর আগে নিজ কর্মস্থল বিদ্যালয় ভবনের তৃতীয় তলা থেকে মুমূর্ষ অস্থায় তাকে উদ্ধার করা হয়।

পরিবার সূত্রে জানা যায়, শহরের মরহুম আব্দুল করিম পাটোয়ারী সড়কস্থ বিষ্ণুদী আজিমিয়া সপ্রাবির প্রধান শিক্ষক মো. রফিকুল ইসলাম প্রতিদিনের ন্যায় বুধবার সকাল সাড়ে ৮টার দিকে বাসা থেকে বের হয়ে কর্মস্থলে আসেন। এরপর দুপুরে পরিবারের পক্ষ থেকে তাঁকে একাধিক বার ফোন করা হলেও কোনো সাড়া না পাওয়ায় খোঁজা-খুজি শুরু হয় ।

এক পর্যায়ে পরিবারের সদস্যরা তার খোঁজে বিদ্যালয়ে ছুটে আসেন। সেখানে খোঁজাখুঁজির করে বিদ্যালয়ের ৩য় তলার একটি বন্ধ কক্ষ থেকে মুমূর্ষ অবস্থায় তাঁকে উদ্ধার করা হয়। এসময় ঐ রুম থেকে কীটনাশক জাতীয় ৩টি খালি বোতল উদ্ধার করা হয়।

এরপর স্বজনরা দ্রুত তাঁকে চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে যায়। সেখানে কর্মরত চিকিৎসক উন্নত চিকিৎসার জন্য তাঁকে ঢাকায় রেফার করেন। পথিমধ্যে তাঁর মৃত্যু হলে পুন:রায় চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে আনা হয়। পরে কর্মরত চিকিৎসক মৃত ঘোষণা করেন। খবর পেয়ে লাশ ময়না তদন্তের জন্যে হাসপাতালে নেয়া হয়।

এদিকে তার মৃত্যুকে রহস্যজনক বলে মনে করছেন বিদ্যালয়ের অন্য শিক্ষকরা। এটি হত্যা না আত্মহত্যা, তা খতিয়ে দেখছে পুলিশ। ঘটনাস্থলে পুলিশ ও পিবিআই প্রাথমিক সুরতহাল করেছে। এসময় তারা একটি চিরকুট খুঁজে পান। তবে পুলিশ প্রাথমিকভাবে ধারণা করছে, বিষপান করে আত্মহত্যা করতে পারনে ওই প্রধান শিক্ষক।

এ বিষয়ে বিদ্যালয়ের শিক্ষক নাছির আলম বলেন,স্যারের সঙ্গে আমার আজও কথা হয়েছে। স্যার আমাকে একবার বিদ্যালয়েও আসতে বলেছিলেন। পরে বিকেলে এসে স্যারের মৃত্যুর খবর শুনতে পাই।

জেলা প্রাথমিক শিক্ষা কর্মকর্তা সাহাবুদ্দিন বলেন, রফিকুল ইসলাম ২০২০ সালের ১ জানুয়ারি এ বিদ্যালয়ে যোগদান করেন। তিনি খুব শান্ত প্রকৃতির মানুষ ছিলেন। আমার জানা মতে কারও সঙ্গে তাঁর দ্বন্ধ নেই। কীভাবে কী হলো কিছুই বুঝতে পারছি না।

চাঁদপুর মডেল থানার পুলিশ পরিদর্শক (তদন্ত) সুজন কান্তি বড়ুয়া বলেন, প্রাথমিকভাবে ধারণা করা হচ্ছে প্রধান শিক্ষক রফিকুল ইসলাম বিষপান করে আত্মহত্যা করেছেন। এ ছাড়া তিনি একটা চিরকুট লিখে গেছেন। যা’ তদন্তের স্বার্থে আমরা উন্মুক্ত করছি না। বাকি কাজ তদন্ত করে জানানো হবে।

এ বিষয়ে চাঁদপুর সদর সার্কেলের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার আসিফ মহিউদ্দিন বলেন, আমরা যতটুকু শুনেছি তিনি বিষক্রিয়ায় মারা গেছেন। তবে ময়নাতদন্ত ছাড়া কিছু বলা যাবে না।

শেয়ার করুন: