আন্দোলন করছি ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য নয় :বুলু

মাসুদ রানা ॥

বিএনপি কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির ভাইস চেয়ারম্যান ও কুমিল্লা বিভাগীয় গনসমাবেশ সমন্বয় কমিটির দলনেতা বরকত উল্যাহ বুলু বলেছেন, কুমিল্লার সমাবেশ থেকে আমরা বার্তা দিতে চাই শেখ হাসিনাকে আর বাংলার মাটিতে প্রয়োজন নেই।

আগামী ২৬ নভেম্বর কুমিল্লা বিভাগীয় গনসমাবেশ সফল করার লক্ষ্যে ১২ নভেম্বর শনিবার দুপুরে চাঁদপুর জেলা বিএনপির সভাপতি শেখ ফরিদ আহমেদ মানিকের বাসভবনে (মুনিরা ভবন) আয়োজিত জেলা বিএনপির প্রস্তুতি মূলক সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

এসময় তিনি আরো বলেন,আপনারা দেখেছেন সরকার সমাবেশের আগে কি রকম ধর্মঘট দিয়েছে। তারপরও কি রকম গনজোয়ার সৃষ্টি হয়েছে । কুমিল্লার নাম শুনলেই শেখ হাসিনা আতঙ্কে থাকে।এই অবৈধ সরকার আবারও অবৈধ নির্বাচনের মধ্যে দিয়ে ক্ষমতায় আসতে চায়। তার সেই খায়েস আর পূর্ণ হবে না। আজকে দ্রব্য মূল্যের উদ্ধগতি। ব্যাংক গুলিতে কোন টাকা নেই। সব তারা লুটেপুটে নিয়েছে। এই টাকা নিয়ে কানাডার বেগম পাড়ায় বাড়ি হয়েছে। আর বলে বেগম জিয়া নাকি এতিমের ২ কোটি টাকা মেরে দিয়েছে। অথচ সেই টাকা আজকে বেড়ে ব্যাংকে ৪ কোটি টাকা হয়েছে।ঢাকায় আমাদের সমাবেশের মাধ্যমে আমরা বার্তা দিতে চাই শেখ হাসিনাকে ক্ষমতায় রেখে এদেশে কোন নির্বাচন হবে না। মিনিমাম ৫০ লক্ষ্য লোকের সমাবেশ হবে ঢাকাতে। বাংলাদেশের ছোট বড় যেসব রাজনৈতিক দল রয়েছে সবাইকে নিয়ে আমরা জাতীয় ঐক্য গড়ে তোলবো। তারা বলেছে যুবলীগের যুব সমাবেশে ঐতিহাসিক সমাবেশ হবে কিন্তু সেখানে কি পরিমাণ লোক হয়েছে সেটি আপনারা দেখেছেন।

তিনি বলেন, শেখ পরিবারের কেউ সরাসরি যুদ্ধে অংশ নেয়নি। আজকে যারা শহীদ প্রেসিডেন্ট জিয়াউর রহমানকে নিয়ে কথা বলে তারা একদিন ইতিহাসের আস্তাকুঁড়ে নিক্ষেপ হবে। আজকে বিএনপি যে আন্দোলন সংগ্রাম করছে তা বিএনপি ক্ষমতায় যাওয়ার জন্য নয়। তা হচ্ছে এদেশের মানুষকে মুক্তি দেওয়ার জন্য। দেশের সম্পদ লুন্ঠন করে তারা আরাম আয়েশ করছে আর দেশের মানুষ কষ্টে আছে।

প্রধান বক্তা হিসেবে বক্তব্যে রাখেন কুমিল্লা বিভাগীয় বিএনপির সাংগঠনিক সম্পাদক মোস্তাক মিয়া। তিনি বলেন, কুমিল্লার রাজপথ ২৬ তারিখ বিএনপি নেতাকর্মীদের দখলে থাকবে। সেদিন লক্ষ্য লক্ষ্য নেতাকর্মীর ঢল নামবে। প্রতিটি ঘরে ঘরে ২৬ নভেম্বরের প্রোগ্রামের দাওয়াত পৌঁছে দিতে হবে।

সভায় সভাপতির বক্তব্যে চাঁদপুর জেলা বিএনপির সভাপতি শেখ ফরিদ আহমেদ মনিক বলেন, আমরা সকল মতভেদ ভূলে ২৬ তারিখের সমাবেশ সফল করবো। ভয়ের কিছু নেই। আগামী দিনে বিএনপিকে ক্ষমতায় আনতে হলে শেখ হাসিনাকে সর্ব প্রথম ক্ষমতা থেকে হঠাতে হবে।
চাঁদপুর জেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক অ্যাড.সলিম উল্যাহ সেলিম, সাবেক যুগ্ম আহ্বায়ক মুনির চৌধুরী ও খলিলুর রহমান গাজীর যৌথ পরিচালনায় বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন কুমিল্লা বিভাগীয় বিএনপির সহ-সাংগঠনিক সম্পাদক সায়েদুল হক সাঈদ, বিএনপি কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটির প্রশিক্ষণ বিষয়ক সম্পাদক আলহাজ্ব রাশেদা বেগম হীরা, সদস্য এম এ হান্নান, ব্যাংকিং ও রাজস্ব বিষয়ক সম্পাদক লায়ন হারুনুর রশীদ, সদস্য বাহবুবুল ইসলাম স্বপন, আব্দুস সাত্তার পাটওয়ারী, ক্যাবের সভাপতি ডা. সরকার মাহবুব আহমদ শামীম, কেন্দ্রীয় ছাত্রদলের সহ- সভাপতি নিজাম উদ্দিন রিপন, যুগ্ম সম্পাদক আব্দুর রহিম সৈকত, সহ- দপ্তর সম্পাদক শাহরিয়ার মজুমদার হক শীমুল।

আরো বক্তব্য রাখেন,মতলব উপজেলা পরিষদের সাবেক চেয়ারম্যান এম শুক্কুর পাটওয়ারী, চাঁদপুর শহর বিএনপির সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. হারুনূর রশীদ, জেলা বিএনপির সাবেক যুগ্ম সম্পাদক অ্যাড. জহির উদ্দিন বাবর, ফরিদগঞ্জ উপজেলা বিএনপির সভাপতি শরীফ মোঃ ইউনুছ, সদর উপজেলা বিএনপির সভাপতি শাহজালাল মিশন, কচুয়া উপজেলা বিএনপির সিনিয়র সহ-সভাপতি শাহজালাল, ফরিদগঞ্জ পৌর বিএনপির সভাপতি আমানত গাজী, কচুয়া উপজেলা বিএনপির সাধারণ সম্পাদক অ্যাড. মকবুল হোসেন, হাইমচর উপজেলা বিএনপির সভাপতি আমিন উল্ল্যাহ বেপারী, কচুয়া পৌর বিএনপির সভাপতি নূরুল আমিন বকাুউল, মতলব বিএনপির সহ-সভাপতি ডা. সোহেল আহমেদ প্রমূখ।

সভায় নেতৃবৃন্দ যেকোন মূল্য কুমিল্লা বিভাগীয় গণ সমাবেশ সফল করার প্রত্যয় ব্যক্ত করেন।
সভার শুরুতে পবিত্র কুরআন তেলওয়াত করেন জেলা ওলামা দলের সভাপতি মাওঃ জসিম উদ্দিন। এবং শেষে শহরের গুরুত্বপূর্ণ রাস্তায় লিফলেট বিতরণ করেন। এছাড়াও সভায় জেলা বিএনপির পূর্নাঙ্গ কমিটি না হওয়ায় অনেক নেতাকেই ক্ষোভ প্রকাশ করতে দেখা যায়।

শেয়ার করুন: