চাঁদপুরে আ’লীগ নেতা খুন

নিজস্ব প্রতিনিধি ॥

চাঁদপুর শহরের নিজ বাসায় দুর্বৃত্তের ছুরিকাঘাতে রফিক উল্লাহ কোম্পানি (৭০) নামের এক ব্যক্তি নিহত হয়েছে। শনিবার সন্ধ্যায় নতুনবাজারস্থ সফিনা বোডিংয়ের তৃতীয় তলার নিজ বাসায় এ ঘটনা ঘটে। রফিক চাঁদপুর শহরের ইচলী এলাকার মৃত হেদায়েত উল্লাহ কোম্পানির ছেলে।

নিহত রফিক মৃত্যুর আগ পর্যন্ত চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের কার্যনির্বাহী কমিটির সদস্য ও শহীদ জাবেদ মুক্ত স্কাউটের সভাপতি ছিলেন।

রফিকের বাসার কেয়ারটেকার মিরাজ জানান, আমি মাগরিবের নামাজ আদায় করে বাসায় এসে দেখি রফিক চাচা রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন। তার পাশে একজন ছেলে বসা অবস্থায় আছেন। আমি তখন তাকে বলি চাচার কি হয়েছে। চাচার গায়ে রক্ত কেন ? তখন ওই ছেলে বলে আমি এসে দেখি রফিক সাহেব রক্তাক্ত অবস্থায় পড়ে আছেন । এসময় চাচার ভাতিজা তন্ময়কে ডাকতে যাই। তখন চাচার কাছে থাকা ছেলেটি পালিয়ে যায়।

তিনি আরও জানান, এই ছেলেকে আমি চিনি না, তবে সে মাঝে মধ্যে চাচার কাছে আসতেন।
পরে তার ডাক চিকিৎকারে স্থানীয়রা তাঁকে উদ্ধার করে ২৫০ শয্যা বিশিষ্ট চাঁদপুর সরকারি জেনারেল হাসপাতালে নিয়ে আসলে দায়িত্বরত চিকিৎসক তাঁকে মৃত ঘোষণা করে।
চাঁদপুর মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা আব্দুর রশিদ বলেন, আমরা খবর পেয়ে তার মৃতদেহ উদ্ধার করেছি। বিষয়টি তদন্ত হচ্ছে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সুদীপ্ত রায় জানান, আমরা প্রাথমিকভাবে মনে করছি একটি একটি হত্যাকাণ্ড। তার শরীরের আঘাতের চিহ্ন আছে। তদন্ত স্বাপেক্ষে বিস্তারিত বলা যাবে।এ ঘটনায় বাসার কেয়ারটেকার মিরাজকে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে।

এদিকে তার মৃত্যুর খবর শুনে হাসপাতালে ছুটে যান কেন্দ্রীয় আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজকল্যাণ বিষয়ক সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী , জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি নাছির উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, পৌর মেয়র মো. জিল্লুর রহমান জুয়েল, সাংগঠনিক সম্পাদক তাফাজ্জল হোসেন এসডু পাটওয়ারীসহ দলীয় নেতাকর্মীরা।

শেয়ার করুন: