চাঁদপুরে শারদীয় দুর্গাপূজা উপলক্ষে প্রস্তুতিমূলক সভা

নিজস্ব প্রতিবেদক:

বুধবার (২২ সেপ্টেম্বর) সকাল সাড়ে ১০টায় চাঁদপুর জেলা প্রশাসক সম্মেলন কক্ষে আসন্ন শারদীয় দুর্গাপূজা যথাযোগ্য মর্যাদায় উদযাপনের লক্ষে প্রস্তুতিমূলক সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সভায় সভাপতির বক্তব্যে জেলা প্রশাসক অঞ্জনা খান মজলিশ বলেন, আমরা সবাই একসাথে ধর্মীয় উৎসবগুলো পালন করি। বঙ্গবন্ধুর সম্প্রতির ও সোনার বাংলাদেশ। গুজবে কান দেয়া যাবে না। কোন গুজব হলে আগে শুনবেন এবং প্রশাসনকে জানাবেন। এজন্যে দায়িত্বশীলতার সাথে কাজ করতে হবে। সবাইকে সতর্ক থাকতে হবে। আমাদের উৎসব যেন নিরাপদ হয়। নিজের সুরক্ষা নিজের কাছে। কেউ মাস্ক ছাড়া থাকতে পারবে না। প্রতিমা বিসর্জনকালে শোভা যাত্রা করা যাবে না। এখন করোনা সংক্রমণ একটু কম হলেও পুরোপুরি শেষ হয়ে যায়নি। তাই আমাদের সবসময় স্বাস্থবিধি মেনে চলতে হবে।

তিনি আরো বলেন, পুজা উদযাপনের আগতে নিজেদের মধ্যে একটি কমিটি গঠন করবেন। কিছু কিছু দুস্কৃতিরা চায় আমাদের মধ্যে সম্প্রতি না থাকুক। কেউ যেন কোনরকম অনাকাক্সিক্ষত ঘটনা ঘটাতে না পারে সেদিকে সবসময় আমাদের সতর্ক থাকতে হবে। প্রতিটি মন্ডপে স্বেচ্ছাসেবক টিম গঠন করা দরকার। প্রতিটি সময় খেয়াল রাখতে হবে যেন আইনশৃঙ্খলার কোন অবনতি না ঘটাতে পারে। কোভিড-১৯ এর কারণে কোন প্রকার মেলার আয়োজন করা যাবে না। জেলা প্রশাসক কার্যালয়ে একটি নিয়ন্ত্রণ কক্ষ থাকবে। যেন কোনরকম কোন সমস্যা হলে আমরা সরাসরি যোগাযোগ করতে পারি।

তিনি বলেন, ধর্মীয় নিয়মকানুন মেনে পুজার উৎসব পালন করতে হবে। ধর্মীয় অনুষ্ঠানে যেন ধর্মীয় সঙ্গীত চালানো হয়। নামাজ ও আযানের সময় মাইক চালানো যাবে না। আজকে যেসব সিদ্ধান্ত নেয়া হয়েছে তা যেন সম্পূর্ণরূপে পালন করা হয়। এছাড়াও আপনারা যারা উপজেলা পর্যায়ের কমিটির নেতৃবৃন্দ রয়েছেন, আপনারা নিজ উপজেলায় গিয়ে এসব বিষয় অবহিত করার জন্য অবশ্যই পৃথক সভা করবেন।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (অপরাধ ও প্রশাসন) সুদীপ্ত রায় বক্তব্যে বলেন, এই পুজা বাঙ্গালির উৎসব। আমরা প্রতিটি ধর্মীয় উৎসব একসাথে পালন করি। সেই উৎসবটুকু যেন আমরা ভালোভাবে পালন করতে পারি তারই লক্ষে আজকের এ সভা। পুজার মধ্যে যেন কোন প্রকার উগ্রতা না থাকে। পুজা দেখতে অনেকেই যাবেন, তার মধ্যে মহিলা ও শিশু থাকবে। তাদেরকে কেউ যেন ইভটিজিং বা অন্য কোন কিছু না করতে পারে তার জন্যে আমাদের আইনশৃঙ্খলা সদস্যরা আছেন। প্রতিটা পুজা মন্ডপে পুলিশি নিরাপত্তা ব্যবস্থা থাকবে। প্রত্যেকটা পূজা মন্ডপে যেন জেনারেটরের ব্যবস্থা থাকে। পূজা যেন নির্বিঘ্নে করতে পারি সেদিকে আমাদের প্রস্তুতি রয়েছে। ছোটোখাটো বিষয়গুলোকে নিয়ে যেন সাম্প্রদায়িক ইস্যু না হয়। অনেক সময় অনেক গুজব রটে, সেদিকে আমাদের খেয়াল রাখতে হবে। চাঁদপুর সম্প্রতির শহর, এটিকে ধরে রাখতে হবে।

অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) ইমতিয়াজ হোসেন’র সঞ্চালনায় বক্তব্য রাখেন, জেলা আওয়ামী লীগের সভাপতি আলহাজ্ব নাছির উদ্দিন আহমেদ, সাধারণ সম্পাদক বীর মুক্তিযোদ্ধা আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, পৌরসভার মেয়র অ্যাড. জিল্লুর রহমান জুয়েল, এনএসআই এর উপ-পরিচালক শাহ মোঃ আরমান, জেলা মাদকদ্রব্য নিয়ন্ত্রণ অধিদপ্তরের সহকারী পরিচালক একেএম দিদারুল আলম, বাংলাদেশ পুজা উদযাপন পরিষদের সাধারণ সম্পাদক তমাল ঘোষসহ উপজেলা পুজা উদযাপন কমিটির প্রতিনিধিবৃন্দ।

Recommended For You

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *