জেলেদের চাল আত্মসাতের অভিযোগে কল্যাণপুর ইউপির দুটি ভবন চিলগালা

নিজস্ব প্রতিবেদক:

চাঁদপুরের সদর উপজেলার কল্যাণপুর ইউনিয়নে চাল আত্মসাতের অভিযোগে দুটি ভবন সিলগালা করেছে উপজেলা প্রশাসন।

বুধবার সকাল ১১ টায় ইউনিয়নের গোডাউনে জেলেদের বরাদ্দকৃত ৪৫ বস্তা চালের হদিস না মেলায় সদর উপজেলা পরিষদের নির্বাহী কর্মকর্তা সানজিদা শাহনাজের নির্দেশে দুটি ভবন সিলগালা করেছে উপজেলা সহকারী মৎস্য কর্মকর্তা মো. মিজানুর রহমান।

উপজেলা প্রশাসন সূত্রে জানা যায়, চাঁদপুর সদর উপজেলার কল্যাণপুর ইউনিয়ন জাটকা রক্ষায় জেলেদের জন্য ৫৩.৬৮০ মেট্রিক টন চাল বরাদ্দ দেওয়া হয়। কিন্তু নিদিষ্ট সময়ে জেলেদের চা না দেওয়া উপজেলা প্রশাসন থেকে ইউনিয়নে পর্যবেক্ষণ করতে আসলে দেড় টন চালের হদিস না মেলায় চাল রাখার দুটি ভবন সিলগালা করা হয়।

এ ঘটনার পর ইউনিয়নের চেয়ারম্যান সাখাওয়াত হোসেন রনি পাটওয়ারী পরিষদ এবং বাড়িতে খোঁজ নিয়ে পাওয়া যায়নি। এছাড়া তার ব্যবহৃত মোবাইল নম্বর বন্ধ রয়েছে।

ইউনিয়ন পরিষদের সচিব মো. মিজানুর রহমান বলেন, পরিষদে দুটি ভবনে ৪৫ বস্তা চাল গড়মিল পাওয়ার অভিযোগে সিলগালা করা হয়। চাল না থাকার কারনটি আমার জানা নেই। বিষয়টি চেয়ারম্যান দায়িত্বে ছিল।

চাঁদপুর সদর উপজেলা পরিষদের নির্বাহী কর্মকর্তা সানজিদা শাহনাজ বলেন, চাল না থাকার বিষয়টি জানার পর দুটি ভবন সিলাগালা করার নির্দেশ প্রদান করি। এ ঘটনায় চেয়ারম্যান সাখাওয়াত হোসেন রনি পাটওয়ারী দায়ী। আমরা আপাতত চাল বিতরণ কার্যক্রম বন্ধ রেখেছি। চেয়ারম্যানের বিরুদ্ধে আইগত ব্যবস্থা নেওয়া হবে।

Recommended For You

Leave a Reply

Your email address will not be published.