নৌকার মাঝি সেলিম খানের তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়া

একটি অতি পরিচিত মুখ। অতি চেনা মুখ। তৃণমূল পর্যায়ে আওয়ামী পরিবারের লোক। চাঁদপুর সদর উপজেলার ১০নং লক্ষ্মীপুর মডেল ইউনিয়নবাসীর গ্রহণযোগ্য ও প্রিয়জন। নিঃস্বার্থ সমাজকর্মী, ১০নং লক্ষ্মীপুর মডেল ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সভাপতি ও বর্তমান ইউনিয়ন পরিষদের চেয়ারম্যান মোঃ সেলিম খান পুনরায় মনোনিত হলেন নৌকার মাঝি।

তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় মোঃ সেলিম খান আল-হাদিসের উদ্ধৃতি দিয়ে বলেন, ‘যে ব্যক্তির অন্তরে বিন্দু পরিমাণ অহঙ্কার থাকবে, সে ব্যক্তি বেহেশ্তে প্রবেশ করবে না’- আল হাদিস। মামলা-হামলা-ঝামেলা-ষড়যন্ত্র করে মোঃ সেলিম খানকে বাংলাদেশের বৃহৎ আওয়ামী পরিবারের কাছ থেকে দূরে সরিয়ে রাখতে কেউই পারবে না। মোঃ সেলিম খান যতদিন বাঁচবে, ততদিন বৃহৎ আওয়ামী পরিবারের সাথে ছিলো এবং ভবিষ্যতেও থাকবে। কেউ যদি উদ্দেশ্যেমূলকভাবে যড়যন্ত্রে লিপ্ত থাকে, তার প্রতিবাদে ১০নং লক্ষ্মীপুর মডেল ইউনিয়ন আওয়ামী লীগ, যুবলীগ, ছাত্রলীগ, মহিলা আওয়ামী লীগ ও অঙ্গসহযোগী সংগঠনের সকল পর্যায়ের নেতা-কর্মী এবং সর্বস্তরের মানুষ প্রতিবাদের ঝড় তুলবে। জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের স্বপ্নের সোনার বাংলায় দলের অভ্যন্তরে থাকা ষড়যন্ত্রকারীদের ঠাঁই নেই।

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের মনোনয়ন বোর্ড কর্তৃক নৌকা প্রতীক দেয়ায় মাননীয় প্রধানমন্ত্রী ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সভাপতি জননেত্রী শেখ হাসিনাসহ মনোনয়ন বোর্ডের সকল নেতাদের প্রতি কৃতজ্ঞতা জানান মোঃ সেলিম খান।

Recommended For You

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *