প্রশিক্ষণ নিয়ে ঘরে বসে থাকলে চলবে না : জেলা প্রশাসক

‘আমাদের সবাইকে উদ্যমীদেরকে স্বপ্ন দেখাতে হবে। যুব সমাজের নেতৃত্বেই দেশ এগিয়ে যাবে। বাংলাদেশকে এগিয়ে নিতে হলে যুবসমাজের প্রশিক্ষণের বিকল্প নেই। প্রশিক্ষণের মাধ্যই নিজেকে সফল আত্মকর্মী হিসেবে সমাজে প্রতিষ্ঠিত করা যায়’ কথাগুলো বলছিলেন চাঁদপুরের জেলা প্রশাসক কামরুল হাসান। তিনি মঙ্গলবার যুব সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্যকালে একথাগুলো বলেন। তিনি আরও বলেন, প্রশিক্ষণের মাধ্যমে দক্ষতা অর্জন করতে হবে। দক্ষতা অর্জন করেই স্বাবলম্বীর পথে হাঁটতে হবে। প্রশিক্ষণ নিয়ে ঘরে বসে থাকলে চলবে না। যুব উন্নয়ন থেকে প্রশিক্ষণ শেষে বিভিন্ন ব্যাংক সহজ শর্তে ঋণ নিয়ে কর্মসংস্থানের ব্যবস্থা করতে হবে।

তিনি বলেন, স্বাধীনতার সময় থেকে শুরু করে এ পর্যন্ত সকল ক্রান্তিকালে যুবকরাই এগিয়ে এসেছে, নেতৃত্ব দিয়েছে। উন্নত বাংলাদেশ গড়ার জন্যে যুবকদেরকেই নেতৃত্ব দিতে হবে।

এ বছর যুব দিবসের প্রতিপাদ্য বিষয় প্রশিক্ষিত যুব, উন্নত দেশ, বঙ্গবন্ধুর বাংলাদেশ। এ শ্লোগানে চাঁদপুরে জাতীয় যুব দিবস উপলক্ষে যুব সমাবেশ ও যুব র‌্যালি অনুষ্ঠিত হয়েছে। মঙ্গলবার ১ নভেম্বর বেলা ১১টায় যুব ভবনের সামনে থেকে র‌্যালি বের করা হয়।

চাঁদপুর যুব উন্নয়ন অধিদপ্তরের উপ-পরিচালক নূর মোহাম্মদের সভাপ্রধানে উপজেলা যুব উন্নয়ন অফিসার মনির হোসেনের পরিচালনায় অনুষ্ঠানে বিশেষ অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন পুলিশ সুপার মিলন মাহমুদ, চাঁদপুর জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল, চাঁদপুর যুব উন্নয়ন প্রশিক্ষণ কেন্দ্রের ডিপিসি কফিল উদ্দিন, সংগঠক সেলিম পাটওয়ারী, আয়শা বেগম মুন্নী, আবদুর রহমান রিজভী, আবু হানিফ প্রমুখ।

অনুষ্ঠান শেষে যুব ঋণের চেক বিতরণ, শ্রেষ্ঠ যুব সংগঠকগণকে সনদপত্র ও ক্রেস্ট প্রদান, প্রশিক্ষণার্থীদের মাঝে সনদপত্র বিতরণ করা হয়। অনুষ্ঠানের শুরুতে পবিত্র কোরআন থেকে তেলাওয়াত পাঠ করেন প্রশিক্ষণার্থী মোঃ আল-আমিন।

শেয়ার করুন: