ফরিদগঞ্জে জনশুমারি ও গৃহগণনা উপলক্ষে মতবিনিময় সভা

ফরিদগঞ্জ উপজেলা মিলনায়তনে ‘জনশুমারি ও গৃহগণনা’ ২০২১ প্রকল্পের ২৫ জানুয়ারি সোমবার দুপরে প্রথম জোনাল অপারেশন উপজেলা শুমারি কমিটির অবহতিকরণ ও মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে। এতে প্রধান অতিথি হিসাবে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ জনসংখ্যা ব্যুরোর পরিচালক ও সেন্সাস উইং যুগ্ম সচিব ড.মোহাম্মদ শাহাদাৎ হোসেন ।

উপজেলা নির্বাহী অফিসার শিউলী হরি’র সভাপতিত্বে সভায় প্রধান অতিথি বলেন, স্বাধীন বাংলাদেশে প্রথম গৃহগণনা ১৯৭৩ সালে এবং আদমশুমারি ১৯৭৪ সালে অনুষ্ঠিত হয়। দ্বিতীয় ১৯৮১, তৃতীয় ১৯৯১ চতুর্থ ২০০১ এবং পঞ্চম ২০১১ সালে আদশুমারি ও গৃহগণনা অনুষ্ঠিত হয়। বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো প্রতি দশ বছর অন্তর অন্তর জনশুমারি করে। পরিসংখ্যান আইন ২০১৩ অনুযায়ী অর্থনৈতিক শুমারি এবং কৃষি শুমারির পাশাপাশি জনশুমারি পরিচালনা করার ব্যাপারে বাংলাদেশ পরিসংখ্যান ব্যুরো’র আইনগত বাধ্যবাধকতা রয়েছে।

২০১৩ সালে প্রনীত পরিসংখ্যান গৃহগণনা আগামি ২০২১ সালের অক্টোবর মাসে পরিচারনা উদ্যোগ গ্রহণ করা হয়েছে। দেশের প্রতিটি থানা ও সকল জনগনকে শুমারিতে অন্তর্ভুক্ত করার পাশাপাশি প্রথমবারের মত বাংলাদেম অবস্থানরত বিদেশী নাগরিক ও বিদেশে অবস্থানরত বাংলাদেশী নাগরিকদেরও এ শুমারিতে গণনায় অন্তর্ভুক্ত করা হবে।

তিনি আরও বলেন, সঠিক তথ্য ব্যতীত সঠিক কোন পরিকল্পনা প্রণয়ন ও বাস্তবায়ন করা অত্যন্ত দুরুহ। তাছাড়া আমাদের ব্যক্তিদের জীবন পারিবারিক জীবন, সামাজিক জীবন, রাস্ট্রীয় জীবন রাস্ট্রীয় জীবন তথা রাজনৈতিক জীবনে উন্নয়নের সোপান হিসেবে নির্ভরযোগ্য পরিসংখ্যান অত্যন্ত জরুরী।বিবিএস রয়েছে গৌরবোজ্জল ঐতিহ্য। মহান স্বাধীনতা যুদ্ধের মাধ্যমে বিজয় অর্জনের পর জাতীর পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মজিবুর রহমান যুদ্ধ বিধস্ত দেশে বিভিন্ন ক্ষেত্রে প্রয়োজনীয় প্রাতিষ্ঠানিক কাঠামো প্রতিষ্ঠার উদ্যোগ নেন, তারই ধারাবাহিকতায় ১৯৭৪সনে পরিসংখ্যান কার্যক্রমে নিয়োজিত ৪টি পৃথক প্রতিষ্ঠানকে একীভূত ও সুসমন্বিত করে তিনি বিবিএস প্রতিষ্ঠা করেছিলেন।

তিনি আরও বলেন,দেশের বর্তমান অবস্থা, ভবিষ্যৎ পরিকল্পনা প্রনয়নসহ গুরুত্বপূর্ণ কাজে জনশুমারি অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ ভুমিকা পালন করে। জনশুমারির মাধ্যমে কোন ওয়ার্ডে উপজেলায় জেলায় লোকসংখ্যা, ঘরবাড়ি, গৃহপালিত পশুপাখি,আবাদি অনাবাদি ভূমি এমনকি কোন এলাকায় কোন ফসল ভালো জন্মে প্রভৃতি তথ্য জনশুমারির মাধ্যমে জানা যায়।

উল্লেখ্য,জনশুমারি ২৪শে অক্টোবর থেকে ৩১শে অক্টোবর পর্যন্ত।

মতবিনিময় সভায় আরো বক্তব্য রাখেন, যুগ্মপরিচালক এইচ এম ফিরোজ, জেলা শুমারি সমন্নয়ক কারী ওয়াহিদুল ইসলাম, সহকারী কমিশনার (ভূমি) শারমিন আক্তার, থানা অফিসার ইনচার্জ মোঃ শহিদ হোসেন,উপজেলা যুব উন্নয়ন কর্মকর্তা মোঃ ইব্রাহিম মিয়া, উপজেলা ভারপ্রাপ্ত পরিসংখ্যান কর্মর্কতা এম এ কাসেম, ফরিদগঞ্জ প্রেসক্লাব সাধারণ সম্পাদক আবদুস সোবহান লিটন, সাবেক সভাপতি নুরুন্নবী নোমান ও সংবাদকর্মী আ:কাদির।

Recommended For You

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *