ফরিদগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে বসত ঘরে হামলা ॥ থানায় অভিযোগ

ফরিদগঞ্জ প্রতিনিধি:

চাঁদপুরের ফরিদগঞ্জে তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে বসত ঘরে হামলার ঘটনা ঘঠেছে। এই বিষয়ে থানায় লিখিত অভিযোগ করেন ভোক্তবোগী পরিবারের পক্ষে আরিফ হোসেন। ঘটনাটি ঘটে উপজেলার ১৪নং দক্ষিন ইউনিয়নের চর মুঘুয়া গ্রামে খন্দকার বাড়িতে।

ঘটনার সূত্রে জানাযায়, ২০ অক্টোবর বৃহস্প্রতিবার চরমুঘুয়া গ্রামের মৃত আবদুল করিম খন্দকার বাড়ির হাজেরা বেগম (৩২), তার নিজ গৃহে প্রয়োজনীয় কাজ করতে ছিলেন। এই সময় একই বাড়ির সালেহা বেগম(৪৭) পূর্ব শত্রুতার জের ধরে অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে। এক পর্যায়ে হাজরা বেগম অতিষ্ট হয়ে কথার জবাব দিলে সালেহা বেগম ও তার দুই ছেলে আতিক হোসেন(২৬) রিয়াজ হোসেন(১৮) ও মেয়ে হাসনা (২৩)সহ দেশীয় অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে হাজেরা বেগমের উপর আক্রোমন করেন এবং তাকে বেধর মারধর করেন। মারধরের একপর্যায়ে বসত ঘরের জানালা ভেঙ্গেপেলেছেন বলে অভিযোগ করেন হাজেরা বেগম ।

অভিযোগের বাদী আরিফ হোসেন জানান, আমরা সবসময় বাড়িতে থাকিনা সেই সুযোগে তারা প্রায় সময় আমাদের বসত ঘরে প্রবেশ করে এবং আমার স্ত্রীর উপর নির্যাতন চালায়। গত বৃহস্পতিবারের তারা আমার স্ত্রীর উপর হামলা করেছে এবং তাকে মারধর করেছে। আমার ৪ বছরের কন্য সন্তার সুমাইয়াকে ছাড় দেয়নি তাকেও মারধর করেছে। আমরা নিজেদের নিরাপত্তার জন্য বাধ্য হয়ে আইনের আশ্রয় নিয়েছি। আমরা এর দৃষ্টান্তমূলক বিচার চাই।

বিবাদী সালেহা বেগম বলেন, আমার দূর সম্পর্কের আত্বীয় রানু বেগম তাদের ঘরে যাতায়াত করে, রানুর স্বামী জেলে থাকায় সে একটু বেশিই যাতায়াত করত। রানু বেগমের শ^াশুড়ীর কাছে তারা আমাদের নামে তারা আজেবাজে কথা বলেছে। যার কারনে আমি ক্ষিপ্ত হয়ে গালিগালাজ করি , আমিতো কারো নাম নিয়ে গালিগালাজ করিনি। অপর প্রশ্নের জবাবে তিনি বলেন, উভয় পক্ষের মাঝে মারামারির এক পর্যায়ে তাদের জানালা ভেঙ্গে যায়।
অভিযোগরে প্রেক্ষিতে গঠনাস্থল পরিদর্শন করেন, এস আই আনোয়ার হোসেন। তিনি জানান আমরা গঠনাস্থান পরিদর্শন করেছি, আইন অনুযায়ী প্রয়োজনীয় ব্যাবস্থা গ্রহন করা হবে।

Recommended For You

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *