মতলবে একই রাতে দুটি অগ্নিকান্ড : ব্যাপক ক্ষয়- ক্ষতি

মো. আকতার হোসেন:

চাঁদপুরের মতলব দক্ষিণ উপজেলায় ২ জুন মঙ্গলবার রাতে ১ ঘন্টার ব্যবধানে দুটি অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে। এতে বসত ঘর,গোয়াল ঘর,খরের পাড়া পুড়ে ছাই হয়ে গেছে। আগুনে পুড়ে প্রায় পাঁচ লক্ষাধিক টাকার ক্ষতি হয়েছে বলে ক্ষতিগ্রস্ত পরিবারের লোকজন জানিয়েছেন।

মঙ্গলবার রাত প্রায় সাড়ে ৮ টায় উপজেলার খাদেরগাঁও ইউনিয়নের নাগদা ও নারায়ণপুর ইউনিয়নের বদরপুর গ্রামে রাত পৌনে ১০ টায় এ অগ্নিকান্ডের ঘটনা ঘটেছে।

এলাকাসী ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে, নাগদা গ্রামের শাহজালাল প্রধানের খরের পাড়ায় রাত ৮ টায় আগুন জ্বলতে দেখে জনৈক পথচারী ডাকচিৎকার দিলে আশ- পাশের লোকজন এগিয়ে আসে।এলাকাবাসীর সহায়তায় প্রায় আধাঘন্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে আসে।

ক্ষতিগ্রস্ত শাহজালাল বলেন, শত্রুতাবশত কেউ হয়তোবা এ অগ্নিসংযোগের ঘটনাটি ঘটিয়েছে।

এ ঘটনার এক ঘন্টা পর রাত পৌনে ১০ টায় নারায়ণপুর ইউনিয়নের বদরপুর গ্রামের মৃত আমির হোসেন পাটওয়ারীর ছেলে আলমগীর হোসেন পাটওয়ারীর পরিত্যক্তব দুটি বসত ঘর ও একটি গোয়ালঘর আগুনে পুড়ে ছাই হয়ে গেছে।

এলাকাবাসী ও প্রত্যক্ষদর্শী সূত্রে জানা গেছে,আলমগীর পাটওয়ারীর গরিত্যক্ত বসত ঘরে আগুন জ্বলতে দেখে বাড়ীর এক মহিলা ডাকাডাকি করতে থাকে।মুহুর্তের মধ্যে আগুনের লেলিহান শিখা পাশের একটি ঘর ও একটি গোয়াল ঘরে লেগে যায়।মতলব ফায়ার সার্ভিসের একটি ইউনিট এবং থানা পুলিশ ঘটনাস্থলে উপস্থিত হয়। এলাকার যুবকদের সহায়তায় প্রায় একঘন্টা চেষ্টা চালিয়ে আগুন সম্পূর্ণ নিয়ন্ত্রণে আসে। তবে দুটি বসত ঘর ও গোয়াল ঘর রক্ষা করতে না পারলেও আশপাশের ৫/৬ টি বসত ঘর আগুনে পুড়ে যাওয়া থেকে রক্ষা পেয়েছে।

মতলব দক্ষিণ উপজেলার ফায়ার ষ্টেশনের ইনচার্জ আসাদুজ্জামান বলেন,অগ্নিকাণ্ডের কোন কারণ জানা যায়নি।ক্ষতিগ্রস্ত ঘরে মানুষজন কেউই থাকেনা এবং ওই ঘরে বিদ্যুৎও নেই।
ক্ষতিগ্রস্ত আলমগীর বলেন,শত্রুতা বশত এ অগ্নিসংযোগ করেছে এলাকার কেউ।

থানার অফিসার ইনচার্জ স্বপন কুমার আইচ বলেন, অগ্নিকাণ্ডের সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থলে যাই। এলাকাবাসী ও ফায়ার সার্ভসের সহযোগিতায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আসে ও বড় ধরনের ক্ষতি থেকে বাড়ির লোকজন রক্ষা পায়।তবে অগ্নিকাণ্ডের কোন কারণ জানা যায়নি।

Recommended For You

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *