মতলবে দুই সন্তানের জননীর আত্মহত্যা

মতলব দক্ষিণ ব্যুরো:

মতলব দক্ষিণ উপজেলায় বাপের বাড়ীতে গলায় ফাঁস দিয়ে আত্মহত্যা করেছে দুই সন্তানের এক জননী। সে মতলব পৌরএলাকার নবকলস গ্রামের বাবুল দেওয়ানের মেয়ে। রবিবার বিকাল ৫ টায় নিজ ঘরের আড়ার সাথে ওড়না পেচিয়ে আত্মহত্যা করে পপি আক্তার।

এলাকাবাসী সূত্রে জানা যায়, প্রবাসী স্বামী ও শ্বশুর বাড়ীর লোকজনদের নানা ধরনের অত্যাচার নির্যাতন সইতে না পেরে রাগে ক্ষোভে অভিমান করে বাপের বাড়ীতে এসে গলায় ফাঁশি দিয়ে আত্মহত্যা করে পপি আক্তার। তার শ্বশুর বাড়ী উপাদী গ্রামে। স্বামীর নাম হযরত আলী বকাউল।সে দীর্ঘদিন যাবৎ প্রবাসে ( ব্রুনাই) থাকে।

পপির বাবা বাবুল দেওয়ান অভিযোগ করে বলেন,এক মাস আগে তার মেয়ে পপিকে শ্বশুর বাড়ীতে ননদ,ভাবী ও শ্বাশুড়ি বেধরক মারধর করে।তার স্বামীকে জানানো হলে উল্টো পপিকে তার স্বামী গালমন্দ করে। শ্বশুর বাড়ীর লোকজনের অত্যাচার সইতে না পেরে বাড়ীতে চলে আসে। গত কয়েক দিন যাবত তার স্বামি সাথে মোবাইলে ঝগরা চলে আসছিল এরই মধ্যে তার স্বামি তাকে তালাক দেয়ার হুমকি দেয় বলে জানান । তাই পপি রাগে ক্ষোভে অভিমান করে এ আত্মহত্যা করে।

সংবাদ পেয়ে ঘটনাস্থল পরিদর্শন করেন সহকারী পুলিশ সুপার (মতলব সার্কেল) ইয়াসির আরাফাত এবং থানার অফিসার ইনচার্জ মোহাম্মদ মহিউদ্দিন মিয়া, ওসি তদন্ত মফিজুল ইসলাম।
ওসি মোহাম্মদ মহিউদ্দিন মিয়া বলেন, এ ঘটনায় থানায় একটি অপমৃত্যু মামলা হয়েছে।

Recommended For You

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *