চাঁদপুর রক্ষায় ১১শ’ কোটি টাকার প্রকল্প:প্রয়োজনে ১৫শ’ কোটি টাকা ব্যয় করা হবে

নিজস্ব প্রতিবেদক:

পানি সম্পদ উপমন্ত্রী ও বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এ এম এনামুল হক শামীম বলেছেন, যে কোন মূল্যে মেঘনার ভাঙ্গন থেকে চাঁদপুরকে রক্ষা করা হবে। ইতোমধ্যে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার মেঘা প্রকল্পের আওতায় চাঁদপুর ও হাইমচর উপজেলা স্থায়ীভাবে রক্ষাকল্পে ১১শ’ কোটি টাকার একটি প্রকল্প গ্রহণ করা হয়েছে। এই প্রকল্প একনেকে পাশ হওয়ার পরেই চলতি বছরের মধ্যেই কাজ শুরু করা হবে।

৫ আগস্ট সোমবার সকাল ১১টায় চাঁদপুর শহররক্ষা বাঁধের পুরাণ বাজার হরিসভা এলাকা পরিদর্শন শেষে এক সংক্ষিপ্ত সমাবেশে উপস্থিত জনতার উদ্দেশ্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি আরো বলেন, ১১শ’ কোটি টাকায় যদি প্রকল্প বাস্তবায়ন করতে সমস্যা হয়, প্রয়োজনে ১৫শ’ কোটি টাকা এ প্রকল্পে ব্যয় করা হবে। এসময় তিনি জনতার দাবীর পরিপ্রেক্ষিতে প্রকল্পের কাজটি যাতে করে সেনাবহিনী মাধ্যমে সম্পন্ন করা হয়, সেই বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর সাথে আলোচনা করা হবে বলে জানান।

মন্ত্রী বলেন, চাঁদপুর ভাঙন শুরু হওয়ার পর থেকেই আমার সাথে শিক্ষামন্ত্রী ডাঃ দীপু মনি সার্বক্ষনিক যোগাযোগ রেখেছেন। আমরাও চাঁদপুর শহর রক্ষা প্রতিরোধে খুবই আন্তরিক। কারণ আমিও আপনাদের পাশের এলাকার সন্তান। নদী ভাঙনের শিকার হলে যে কি কষ্ট সেটা আমার জানা আছে। কারণ নদী ভাঙনের শিকার হয়ে আমাদের নিজ ঠিকানা পরিবর্তন করতে হয়েছে।

সমাবেশে আরো বক্তব্য রাখেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ত্রান ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী, জেলা আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক আবু নঈম পাটওয়ারী দুলাল ও জেলা প্রশাসক ভারপ্রাপ্ত মো. শওকত ওসমান।

মন্ত্রীর সাথে বাংলাদেশ পানি উন্নয়ন বোর্ডের মহাপরিচালক মো. মাহফুজুর রহমান, প্রধান প্রকৌশলী ডিজাইন মোতাহার হোসেন ও প্রধান প্রকৌশলী কুমিল্লা অঞ্চল জহির উদ্দিনসহ আরো উর্ধ্বতন কর্মকতাগণ উপস্থিত ছিলেন।

ভাঙ্গন ক্ষতিগ্রস্থ প্রত্যেক পরিবারকে তাৎক্ষনিকভাবে দুই বান্ডেল টিন ও নগদ ৬হাজার টাকা বরাদ্দের ঘোষণা দেন।

Recommended For You

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *